ফরহাদনগরে মুক্তিযোদ্ধা কার্যালয় ভাংচুর বাদ যায়নি বঙ্গবন্ধু-প্রধানমন্ত্রীর ছবি

৫,৩৭৩    0

farhad nagar

ফেনী সদর উপজেলার ফরহাদনগর ইউনিয়নের উত্তর ফরহাদনগর সাতবাড়িয়া এলাকায় শুক্রবার মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের অফিস ভাংচুর করেছে যুবলীগ-ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এসময় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামীলীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা এবং জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী এমপির ছবিও ভাংচুর করা হয়।
প্রত্যক্ষদর্শী ও এলাকাবাসী সূত্র জানায়, মধ্য ফরহাদ নগর বাজারের হৃদয় স্টোরের মালিক ও ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবদুল আজিজ আরিফের কাছে গত ১০ আগস্ট সকালে ১ লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে প্রতিপক্ষরা। দাবীকৃত চাঁদা না দেয়ায় শুক্রবার বিকালে ৩০-৪০ জন যুবক সশ্রস্ত্র অবস্থায় হামলা চালিয়ে পিটিয়ে ও কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। এসময় ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জামশেদ আলম রাসেল ও শুক্কুর নামের আরো দুইজন আহত হয়। একইসময় হামলাকারিরা সাতবাড়িয়া এলাকায় ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের কার্যালয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। তারা কার্যালয়ে এলোপাতাড়ি ভাংচুর করে চেয়ার-টেবিল তছনছ করে ফেলে যায়। হামলাকারীরা সবাই ছাত্রলীগ-যুবলীগের নেতাকর্মী। এদের মধ্যে ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সজিব, ফয়সাল, হারুন, সবুজ, আনোয়ার, জাবেদের নাম জানা গেছে। এরা স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন টিপুর অনুসারী বলে জানিয়েছেন ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আশরাফ উদ্দিন আহমদ। তিনি জানান, খবর পেয়ে বোগদাদিয়া পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই মাসুদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় ফেনী মডেল থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে তিনি জানান। মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমিন জানান, হামলাকারিরা কয়েকজন মুক্তিযোদ্ধাকেও শারিরীকভাবে লাঞ্ছিত করে।

এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন টিপুর বক্তব্য জানা যায়নি।

Leave A Reply